Deshe Bideshe

DESHEBIDESHE

ইউনিজয়
ফনেটিক
English
টরন্টো, রবিবার, ২২ মে, ২০২২ , ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

গড় রেটিং: 3.0/5 (10 টি ভোট গৃহিত হয়েছে)

আপডেট : ১০-০৩-২০২০

কুরিয়ার সার্ভিসের নামে প্রতারণা, পাঁচ ‘রয়েল চিটার’ গ্রেপ্তার

কুরিয়ার সার্ভিসের নামে প্রতারণা, পাঁচ ‘রয়েল চিটার’ গ্রেপ্তার

ঢাকা, ০৩ অক্টোবর- স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, ডিএমপি কমিশনার, ডিআইজিসহ বিভিন্ন সরকারি অফিস ও গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা প্রধানের ভুয়া সিল ও স্বাক্ষর জালিয়াতি করে কুরিয়ার সার্ভিস ব্যবসা পরিচালনা করার অভিযোগে এজেআর পারসেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিস লিমিটেড নামের একটি প্রতিষ্ঠানের পাঁচ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে রাজধানীর উত্তরা পূর্ব থানা পুলিশ। গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন সার্ভিসের জেনারেল ম্যানেজার মো. মাহাবুবুর রহমান, আল আমিন, গিয়াস উদ্দিন, সেলিম দেওয়ান ও আ. মান্নান।

গত বৃহস্পতিবার রাতে তাদের গ্রেপ্তারের সময় কুরিয়ার সার্ভিস পরিচালনার ভুয়া কাগজপত্র ও জালিয়াতির বিভিন্ন ডকুমেন্ট জব্দ করা হয়। কুরিয়ার সার্ভিসের ওই পাঁচ ‘রয়েল চিটার’ গ্রেপ্তার হলেও পালিয়েছেন চক্রের মূলহোতা এবং এজেআর পারসেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিস লিমিটেডের চেয়ারম্যান মো. সামসুদ্দিন আহমেদ রিয়াদ (৪৫)।

এ বিষয়ে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) এয়ারপোর্ট জোনের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার তাপস কুমার দাস বলেন, ‘এজেআর পারসেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিস প্রতিষ্ঠানটি উত্তরা ৬ নম্বর সেক্টরের একটি ভাড়া বাড়িতে তাদের কুরিয়ার সার্ভিসের ব্যবসা পরিচালনা করে আসছিল। আবাসিক এলাকায় ব্যবসা পরিচালনাকে কেন্দ্র করে ৬ নম্বর সেক্টরের কল্যাণ সমিতির সঙ্গে তাদের বিরোধ সৃষ্টি হয়। এ বিরোধেকে কেন্দ্র করে এজেআর পার্সেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিসের পক্ষ থেকে ডিএমপি কমিশনার বরাবর অভিযোগ দেওয়া হয়।’

আরও পড়ুন:   চাকরি দেওয়ার নামে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিলেন মিঠুন
 
পুলিশের এই কর্মকর্তা বলেন, ‘অভিযোগ তদন্তে অভিযোগকারী, অভিযুক্ত, সাক্ষীদের সংশ্লিষ্ট কাগজপত্র নিয়ে হাজির হয়ে জবানবন্দি দেওয়ার জন্য নোটিশ করা হয়। নোটিশের পরিপ্রেক্ষিতে কুরিয়ার সার্ভিসের জেনারেল ম্যানেজারসহ পাঁচজন তাদের কাগজপত্রসহ হাজির হয়ে বিভিন্ন অনুমতিপত্র দেখাতে থাকলে সেখানে দেখা যায়, ডিএমপি কমিশনার, ডিআইজি হাইওয়ে পুলিশ, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়সহ বিভিন্ন সরকারি অফিস সংস্থার দেওয়া এজেআর পার্সেল অ্যান্ড কুরিয়ার সার্ভিসের ভ্যান-পিকআপ সমগ্র বাংলাদেশে চলাচলের অনুমতিপত্র রয়েছে। তবে উপস্থাপিত কাগজপত্রগুলো সন্দেহ হলে কাগজপত্রগুলো পর্যালোচনায় দেখা যায়, উল্টো কুরিয়ার সার্ভিসটিই স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, ডিএমপি কমিশনার, ডিআইজিসহ (ঢাকা রেঞ্জ) অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ সংস্থার ভুয়া সিল ও স্বাক্ষর জালিয়াতি করে তারা তাদের ব্যবসা পরিচালনা করে আসছিল।’

তিনি আরও বলেন, ‘গত শুক্রবার পুলিশ বাদী হয়ে গ্রেপ্তার ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে উত্তরা পূর্ব থানায় মামলা রুজু করেছে। চক্রটি এভাবে সরকারি সিল-স্বাক্ষর জালিয়াতি করে আরও কোথাও প্রতারণা করেছে কি না, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তাদের অন্য সদস্যদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।’

সূত্র: আমাদের সময়

আর/০৮:১৪/০৩ অক্টোবর

অপরাধ

আরও সংবাদ

Bangla Newspaper, Bengali News Paper, Bangla News, Bangladesh News, Latest News of Bangladesh, All Bangla News, Bangladesh News 24, Bangladesh Online Newspaper
উপরে